দেশ

বেলকুচিতে ১১ মাসে শতাধিক বাল্যবিবাহ রুখে দিলেন ইউএনও

বেলকুচি (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধি ১৯ জুন, ২০২১, ১৫:৪২:২৪

  • ছবি : নিউজজি

সিরাজগঞ্জ: জেলার বেলকুচিতে গত ১১ মাসে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আনিসুর রহমানের হস্তক্ষেপে ১০০টির বেশি বাল্যবিবাহ বন্ধ হয়েছে। তিনি বেলকুচি উপজেলার বিভিন্ন গ্রামের অপ্রাপ্তবয়স্ক স্কুলগামী কিশোরীদের বাল্যবিবাহের হাত থেকে রক্ষা করেছেন।

শুক্রবার (১৮ জুন) রাতেও বেলকুচি পৌরসভার চালা মধ্যপাড়া এলাকায় অষ্টম শ্রেণির ছাত্রীর বাল্যবিবাহ বন্ধ করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. আনিসুর রহমান।

বেলকুচি পৌরসভার চালা মধ্যপাড়া এলাকার অষ্টম শ্রেণির ছাত্রীর (১৪) সাথে বর পৌরসভার মুকুন্দগাতী এলাকার তাতশ্রমিকের (২৩) বাল্যবিবাহ আয়োজন করা হয়। ভ্রাম্যমাণ আদালত বাল্যবিবাহ বন্ধ করে কনের পিতাকে ৫ হাজার টাকা জরিমানা করেন এবং কনের পিতা তার মেয়েকে ১৮ বছর এর পূর্বে বিবাহ দিবেন না বলে মুচলেকা দেন।

বাল্যবিবাহ বন্ধে সহযোগিতা করেন উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা মো. ইলিয়াস হাসান শেখ, পৌর কাউন্সিলর হাফিজুর রহমান। আর এ বাল্যবিবাহ বন্ধের মধ্য দিয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হিসাবে দায়িত্ব নেয়ার পর এ পর্যন্ত ১০০ টি বাল্যবিবাহ বন্ধ করেছেন তিনি।

উল্লেখ্য, ইতিপূর্বে তিনি সিরাজগঞ্জের চৌহালী উপজেলায় দায়িত্ব পালনকালে ৩৪ টি এবং সিরাজগঞ্জ সদরে ২১৬ টিসহ সিরাজগঞ্জ জেলায় মোট ৩৫০ টি বাল্য বিবাহ বন্ধ করেছেন।

এবিষয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আনিসুর রহমান নিউজজিকে জানান, বাল্যবিবাহ একটি সামাজিক অভিশাপ। এতে মাতৃমৃত্যু ও শিশুমৃত্যু হার বেড়ে যায় এবং নারীর ক্ষমতায়ন কমে যায়। শীঘ্রই বেলকুচি উপজেলাকে বাল্যবিবাহ মুক্ত উপজেলা হিসেবে গড়ে তোলা হবে।

নিউজজি/ এসআই

পাঠকের মন্তব্য

লগইন করুন

ইউজার নেম / ইমেইল
পাসওয়ার্ড
নতুন একাউন্ট রেজিস্ট্রেশন করতে এখানে ক্লিক করুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

copyright © 2021 newsg24.com | A G-Series Company
Developed by Creativeers