ফিচার
  >
প্রাণী ও পরিবেশ

বৈচিত্রময় লাল ঝুটির কাঠঠোকরা

নিউজজি প্রতিবেদক ৪ মার্চ , ২০১৯, ১৪:০১:৪৯

  • ছবি: রাকিব হাসান

কাঠঠোকরা গাছের গায়ে নখ আটকিয়ে ঠকঠক ঠোকর মারে আর তাই বুঝি এদের নাম হয়েছে কাঠঠোকরা। বিচিত্র সব পাখির মধ্যে কাঠঠোকরা এমন এক পাখি, যারা কাঠ ঠোকরাতে পটু। প্রতিদিন একটি কাঠঠোকরা আট হাজার থেকে বারো হাজার বার কাঠে ঠোকর দেয়। 

পৃথিবীতে ১৮০টিরও বেশি প্রজাতির কাঠঠোকরা আছে। আমাদের দেশে ২ধরনের কাঠঠোকরা দেখা যায়। ভাল করে লক্ষ্য করলে দেখা যায় পিঠের পালকগুলি হলদে ও পেটের কয়েকটি জায়গায় সাদা - কালো পালক, মাথায় লাল ঝুটি, শক্ত লম্বাটে ঠোট ও ধারলো নখ থাকে। লাল ঝুটিঁ শুধু পুরুষ কাঠঠোকরাদেরই থাকে। এছাড়া আর যে কাঠঠোঁকরা দেখা যায় সেগুলো খয়েরী রঙের। 

ঠকঠক কাঠ ঠোকরানোর ফলে এরা খুঁজে পায় গাছের ছালের খাঁজের মধ্যে লুকিয়ে থাকা পোকামাকড়দের। এই পোকাগুলো এদের খাবার। কাঠ ঠোকরানোর সময় এদের চোখের সামনে খুব অল্প সময়ের জন্য ছোট একটা পর্দা চলে আসে আর নাকের ফুটোর কাছে কিছু পালক থাকে বলে কাঠের গুঁড়ো এদের চোখে কিংবা নাকের ভেতর ঢুকে না। গাছের গায়ে গর্ত করে বাসাও তৈরি করে এরা। এই গাছের গুড়িতে বাসা তৈরী করে তাতে ধবধবে সাদা ডিম দেয়।

 

কোনো কোনো কাঠঠোকরা দলবেঁধে থাকতে পছন্দ করে, কেউ কেউ আবার চায় একাই থাকতে। একা থাকতে পছন্দ করে, এমন কাঠঠোকরাদের থাকে একেকটি নির্দিষ্ট এলাকা। কাঠ কিংবা খুঁটির মতো কোনো কিছুকে ঠুকরিয়ে যে আওয়াজ করে এরা, সেই আওয়াজ দিয়েই নিজের এলাকা নির্দিষ্ট করে নেয়।

পাঠকের মন্তব্য

লগইন করুন

ইউজার নেম / ইমেইল
পাসওয়ার্ড
নতুন একাউন্ট রেজিস্ট্রেশন করতে এখানে ক্লিক করুন
copyright © 2021 newsg24.com | A G-Series Company
Developed by Creativeers